আরিফ রববানী, দৈনিক সময়ের বার্তা,(ময়মনসিংহ) জেলা প্রতিনিধি:-

ময়মনসিংহের ধোবাউরা উপজেলায় রাস্তাও বন্যা পরিস্হিতি পরিদর্শন করেন জেলার মানবিক ডিসি (জেলা প্রশাসক) মিজানুর রহমান। উপজেলায় ভারী বৃষ্টি ও পাহাড়ি ঢলে প্লাবিত হয়েছে একাধিক উপজেলার একাধিক গ্রাম। নেতাই নদীর ভাঙনের ফলে বসত বাড়িতে বন্যার পানি ওঠায় পানিবন্দী হয়ে পড়েছে অসংখ্য পরিবার। বন্যার পানিতে ভেসে গেছে শতাধিক পুকুরের মাছ। কর্মহীন হয়ে পড়েছে খেটে খাওয়া মানুষ। আবার ঘরের ভিতর ঢুকছে পানি। আশ্রয় নিয়েছেন অনেকে স্বজনদের বাড়িতে। নিতাই নদী ভাঙ্গনে তীব্র শ্রোতে উপজেলার রাস্তাঘাটের ব্যাপক ক্ষয়ক্ষতি ও অবহেলিত ধোবাউড়া উপজেলা সাধারন মানুষের অবস্হা স্বচক্ষে দেখার জন্য ১৪ই জুলাই মঙ্গলবার উপজেলার গোয়াতলা,গামারীতলা, পুড়াকান্দলিয়া,৩টি ইউনিয়নের বন্যা কবলিত এলাকা পরিদর্শন করেন ময়মনসিংহ জেলার মানবিক জেলা প্রশাসক মিজানুর রহমান। মানুষের এই দুরবস্থা দেখে তিনি ধোবাউড়া উপজেলার সমস্যা গুলি দ্রত সমাধান করার আশ্বাস প্রদান করেন ।

এসময় উপস্হিত ছিলেন,উপজেলা পরিষদ চেয়ারম্যান ডেভিড রানা চিসিম, উপজেলা নিবর্বাহী অফিসার রাফিকুজ জামান,অফিসার ইনচার্জ আলী আহম্মেদ মোল্লা, এলজি, ই, ডি,নির্বাহী প্রকৌশলী নূর হোসেন ভুইয়া,ভাইস চেয়ারম্যান আবুল ফজল, ইজ্ঞিনিয়ার শাহীনূর ফেরদৌস, প্রকল্প বাস্তবায়ন কর্মকর্তা জাকির হোসেন,ইউপি চেয়ারম্যান আনোয়ার হোসেন খান, জাকিরুল ইসলাম(টুটন)প্রমুখ। জেলা প্রশাসকের মহানুভবতা দেখে মুগ্ধ হয়েছেন উপজেলার সাধারণ জনগোষ্ঠী।

Leave a Reply

Your email address will not be published.