স্টাফ রিপোর্টারঃএইচ.এম.কাওছার আহমদ
তায়্যিবা ফাউন্ডেশন সিলেটের পরিচালক মাওলানা মারজান আহমদ চৌধুরী বলেছেন, আশুরার দিনের মর্যাদা এবং এ দিন রোজার রাখার বিষয়টি অনস্বীকার্য। এ দিনের ফজিলত হাদীস দ্বারা প্রমাণিত। এর পাশাপাশি এ দিনটি কারবালার স্মরণেও উদযাপন করা উচিৎ। কারণ ইমাম হুসাইন (রা.) এ দিনে যালিমের বিরুদ্ধে হকের আওয়াজ উঁচু করতে গিয়ে শাহাদাত বরণ করেছেন। হুসাইন (রা.) এ উম্মতকে দেখিয়ে দিয়েছেন যে, অন্যায়-অবিচার হতে দেখলে সামর্থ অনুযায়ী সর্বোচ্চ প্রতিবাদ-প্রতিরোধ করতে হবে। প্রকৃতপক্ষে তিনি তাঁর নানাজান রাসূলুল্লাহ সাল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়া সাল্লামের আনিত পূর্ণাঙ্গ জীবন ব্যবস্থাকে টিকিয়ে রাখার স্বার্থে ইয়াযিদের শাসনের বিরুদ্ধে প্রতিবাদ করেছিলেন। আজ পর্যন্ত পৃথিবীতে যত ইসলামী আন্দোলন হয়েছে এবং ভবিষ্যতে যত হবে, সবই হুসাইন (রা.) এবং আহলে বাইতের ত্যাগ ও কুরবানীর ফলাফল। বাংলাদেশ আনজুমানে তালামীযে ইসলামিয়া এই আদর্শকে লালন করেই সামনের দিকে এগিয়ে যাচ্ছে। একই সাথে আমরা কারবালার স্মরণে সমাজে প্রচলিত কুসংস্কারকে দূরীভূত করার জন্য আহ্বান করছি। আমাদেরকে কারবালার প্রকৃত শিক্ষা অর্জন করতে হবে। নিজের মনগড়া মতবাদকে নিয়ে চললে ইসলাম বিদ্বেষীদের দ্বারা আমরা সহজেই আক্রান্ত হয়ে যাব।

তিনি ১৩ আগস্ট, শুক্রবার, বাদ জুমআ সংগঠনের সিলেট বিভাগীয় কার্যালয়ে তালামীযে ইসলামিয়া সিলেট মহানগরীর ২৩ নং ওয়ার্ড শাখার উদ্যোগে পবিত্র আশুরার তাৎপর্য শীর্ষক সেমিনারে প্রধান অতিথির বক্তব্যে উপরোক্ত কথাগুলো বলেন।

শাখা সভাপতি এহসান আহমদ এর সভাপতিত্বে ও সাধারণ সম্পাদক নুরুল হাসান ও সাংগঠনিক সম্পাদক আব্দুল মাজিদ চৌধুরীর যৌথ উপস্থাপনায় প্রধান বক্তা হিসেবে বক্তব্য রাখেন সংগঠনের সিলেট মহানগরীর সভাপতি ছাত্রনেতা এস এম মনোয়ার হোসেন।
বিশেষ অতিথি হিসেবে বক্তব্য রাখেন সংগঠনের সিলেট মহানগরীর সহ-সাধারণ সম্পাদক কাওছার হামিদ সাজু, সিলেট সরকারি আলিয়া মাদরাসা সভাপতি মুহাম্মদ আফজল হোসেন, সিলেট (পূর্ব) জেলা অর্থ সম্পাদক আব্দুল্লাহ আল মাওসুফ ও ১নং ওয়ার্ড সভাপতি জাহাঙ্গীর আলম শাহরিয়া।

অন্যান্যদের মধ্যে উপস্থিত ছিলেন শাখা সহ-সভাপতি বুরহান উদ্দীন, সহ-সাধারণ সম্পাদক জুনাইদ আহমদ, মাশহুদ আহমদ, সহ-প্রচার সম্পাদক এনামুল হক্ব, অর্থ সম্পাদক ইউসুফ আহমদ, সহ-প্রশিক্ষণ সম্পাদক আব্দুস সালাম, শিক্ষা ও সাংস্কৃতিক সম্পাদক শামসুল আলম রাহাত, তথ্য ও প্রযুক্তি সম্পাদক আশরাফুল ইসলাম, সহ-তথ্য ও প্রযুক্তি সম্পাদক রেদ্বওয়ান আহমদ, সদস্য আরিফুল ইসলাম, সাব্বির আহমদ, মাহিন আহমদ, তামিম আহমদ, মুহিউদ্দীন মুহিত প্রমুখ।

Leave a Reply

Your email address will not be published.