লৌহজং (মুন্সীগঞ্জ) প্রতিনিধি:আগামী ২৩ ডিসেম্বর লৌহজং উপজেলায় ইউনিয়ন পরিষদ নির্বাচনে। উপজেলার হলদিয়া ইউনিয়নের চেয়ারম্যান পদে প্রার্থী হিসেবে মনোনয়ন 

প্রত্যাশা করেন মর্তুজা খান ।

 মর্তুজা খান হলদিয়া  ইউনিয়নের মৌছা গ্রামে ১৯৮২ সালে ১লা জানয়ারী  সম্ভ্রান্ত মুসলিম পরিবারে জন্মগ্রহণ করেন। তার পিতা  আলী হোসেন খান (মজলু) ওয়ার্ড আওয়ামীলীগের

প্রধান উপদেষ্ঠা।  

লৌহজং উপজেলা আওয়ামী যুবলীগ যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক জনাব মর্তুজা খান 

ছোট থেকে তার বাবা ও দাদা কে দেখতেন গ্রামের অসহায় মানুষের জন্য কাজ করতে  এবং তাদের বিপদে পাশে দারাতে  সেই থেকেই তার গ্রামের মানুষের জন্য কিছু করা ও মানুষের পাশে ভালো মন্দতে থাকার আকাংখা জাগে । ইতি পুর্বে তিনি তার নিজ ইউনিয়নের মানুষের পাশে থেকে তার নিজ সামর্থ অনুযায় কাজ করেছেন।মানূষের ভালোবাসায় সে সিক্ত হয়ে মানুষের সুখ দুঃখতে মানুষের পাশে থাকার জন্য ও হলদিয়া ইউনিয়কে আধুনিক ইউনিয়ন ও মাদক,সন্ত্রাস মুক্ত ইউনিয়ন গড়ে তোলার লক্ষে  আসন্ন ২৩ ডিসেম্বর ইউনিয়ন পরিষদ নির্বাচনে নৌকার মনোনয়ন প্রত্যাশা করছেন ।

 সরজমিনে গিয়ে জানা যায়, লৌহজং উপজেলার হলদিয়া ইউনিয়নের জনপ্রিয়তার শীর্ষে অবস্থান করছেন মর্তুজা খান  । ইউনিয়নের প্রতিটি মানুষের  ভালো ও মন্দতে সব সময় ডাকা মাত্রই তাকে পাশে পাওয়া যায় । এবং সকল প্রকার সামাজিক কর্ম কান্ডের সাথে  সে জরিত থাকেন  । এলাকার যুব সমাজকে নিয়ে ও তার রয়েছে বিভিন্ন পরিকল্পনা যা তিনি ক্রমাগত ভাবে বাস্তবায়ন করে যাচ্ছে ।

এ ব্যাপারে মর্তুজা খান এর  সাথে কথা বললে তিনি জানান, তার প্রত্যাশা যদি  তাকে নৌকা প্রতীক দেওয়া হয় ইনশাআল্লাহ বিজয় হব। এলাকার জনগণের  চাহিদা পূরণে, শিক্ষা, স্বাস্থ্য, রাস্তাঘাট উন্নয়ন, দূর্নীতি,মাদক- সন্ত্রাসমুক্ত ইউনিয়ন গঠনে কাজ করবেন এবং প্রধানমন্ত্রী জননেত্রি শেখ  হাসিনার হাতকে শক্তিশালী করতে উন্নয়ন অব্যাহত রাখতে কাজ করে যাবেন। 

তিনি আরো জানান, আমি দলীয়ভাবে নৌকার মনোনয়ন প্রত্যাশী। আমার বাবা-দাদা যেভাবে এলাকার মানুষের   সুখ-দুঃখে জনগণের পাশে  ছিলেন , আমিও আছি।   আমি জনগণের  ইচ্ছায় চেয়ারম্যান প্রার্থী হয়েছি। জনগণ আমাকে নির্বাচনে দাড়  করেছে। সকলের দোয়া ও সমর্থন প্রত্যাশা করছি ।

Leave a Reply

Your email address will not be published.